1. selimsavar@gmail.com : khobar24 :
সর্বশেষ :

এসএসসি-সমমানে রেকর্ড ৯৩.৫৮% পাস, জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ লাখ ৮৩ হাজার শিক্ষার্থী

  • সর্বশেষ আপডেট : বৃহস্পতিবার, ৩০ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ৪৫ বার পড়েছেন

অনলাইন ডেস্ক : মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ হয়েছে। এতে গড় পাসের হার ৯৩ দশমিক ৫৮ শতাংশ যা এ যাবতকালের সর্বোচ্চ। এই শিক্ষার্থীদের মধ্যে ১ লাখ ৮৩ হাজার ৩৪০ জন জিপিএ ৫ পেয়েছে, যা উত্তীর্ণের মোট সংখ্যার ৮ দশমিক ১৮ শতাংশ।

এই হিসাবে এবার পাসের হার বেড়েছে ১০ দশমিক ৭১ শতাংশ পয়েন্ট। আর পূর্ণাঙ্গ জিপিএ পাওয়া শিক্ষার্থীর সংখ্যা বেড়েছে ৪৭ হাজার ৪৪২ জন। গত বছর মাধ্যমিক পরীক্ষায় পাস করেছিল ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ, জিপিএ-৫ পেয়েছিল ১ লাখ ৩৫ হাজার ৮৯৮ জন। মেয়েদের পাসের হার ৯৪ দশমিক ৫ শতাংশ এবং ছেলেদের পাসের হার ৯২ দশমিক ৬৯ শতাংশ।

বৃহস্পতিবার সকালে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ফল প্রকাশের মূল অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। গণভবন থেকে এ অনুষ্ঠানে ভার্চ্যুয়ালি যুক্ত হয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে ফল প্রকাশ করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এর আগে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি সব বোর্ডের প্রধানদের কাছ থেকে এবারের ফলের অনুলিপি গ্রহণ করেন। পরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আনুষ্ঠানিক ফল প্রকাশ করেন।

এ সময় বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনিসহ বিভিন্ন বোর্ডের চেয়ারম্যান ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন। এসএসসির ফল অনলাইনে পাওয়া যাবে। মোবাইল ফোনে এসএমএসের মাধ্যমেও ফল জানা যাবে।

এবার ২২ লাখ ৪০ হাজার ৩৯৫ জন শিক্ষার্থী মাধ্যমিক ও সমমানের চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নেয়, তাদের মধ্যে ২০ লাখ ৯৬ হাজার ৫৪৬ জন পাস করেছে। বোর্ড অনুযায়ী পাসের হার ঢাকা বোর্ডে ৯০ দশমিক ১২ শতাংশ, সিলেট বোর্ডে ৯৬ দশমিক ৭৮ শতাংশ, বরিশাল বোর্ডে ৯০ দশমিক ১৯ শতাংশ, কুমিল্লা বোর্ডে ৯৬ দশমিক ২৭ শতাংশ, দিনাজপুর বোর্ডে ৯৪ দশমিক ৮০ শতাংশ, রাজশাহী ৯৪ দশমিক ৭১, চট্টগ্রাম বোর্ডে ৯১ দশমিক ১২ শতাংশ, ময়মনসিংহ বোর্ডে ৯৭ দশমিক ৫২ শতাংশ।

সাধারণত বছরের ফেব্রুয়ারিতে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষা নেওয়া হয়। করোনা মহামারির কারণে নির্ধারিত সময়ের সাড়ে আট মাস পর এবার এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এবার শুধু তিনটি নৈর্বাচনিক বিষয়ে পরীক্ষা নেওয়া হয়েছে। বাংলা, ইংরেজি ও গণিতের মতো আবশ্যিক বিষয়ে জেএসসির ফলের ভিত্তিতে নম্বর দেওয়া হয়।

খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর পড়ুন :