1. selimsavar@gmail.com : khobar24 :

মহারাষ্ট্রে হাসপাতালে আগুন ধরে যাওয়ায় ১০ করোনা রোগীর মৃত্যু

  • সর্বশেষ আপডেট : শনিবার, ৬ নভেম্বর, ২০২১
  • ৩৯ বার পড়েছেন
মহারাষ্ট্রে হাসপাতালে অগুন ধরে যাওয়ায় ১০ করোনা রোগীর মৃত্যু মহারাষ্ট্রে হাসপাতালে অগুন ধরে যাওয়ায় ১০ করোনা রোগীর মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক : ভারতের মহারাষ্ট্র রাজ্যের আহমেদনগর সিভিল হাসপাতালে আগুন ধরে যাওয়ায় ১০ জন করোনা রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

শনিবার সকালে মর্মান্তিক ওই দুর্ঘটনা ঘটে। আইসিইউতে ভর্তি থাকা আহত রোগীদের অন্যত্র স্থানান্তর করা হয়েছে। একইসঙ্গে নিহতদের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

হাসপাতালটিতে আগুন লাগার কারণ এখনও স্পষ্ট নয়, তবে শর্ট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হতে পারে বলে বলা হচ্ছে।

আহমেদনগরে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় শোক প্রকাশ করেছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। তিনি বলেন, ‘মহারাষ্ট্রের আহমেদনগরের সিভিল হাসপাতালে হৃদয় বিদারক দুর্ঘটনায় অত্যন্ত ব্যাথিত। শোকের এই মুহুর্তে আমার সমবেদনা শোকাহত পরিবারের সাথে রয়েছে এবং আমি আহতদের দ্রুত আরোগ্যের জন্য ঈশ্বরের কাছে প্রার্থনা করছি।’

এনডিটিভি জানিয়েছে, যে ওয়ার্ডে আগুন লেগেছে সেটি কোভিড ওয়ার্ড ছিল। বর্তমানে ফায়ার সার্ভিস বিভাগের তদন্ত চলছে। আজ সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ওই দুর্ঘটনা ঘটে বলে জানা গেছে। দমকল কর্মীদের ব্যাপক প্রচেষ্টার পরে অবশেষে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।

আহমেদনগর জেলা কালেক্টর ডাঃ রাজেন্দ্র ভোসলে সাংবাদিকদের বলেন, ‘রোগীদের অন্য হাসপাতালের কোভিড ওয়ার্ডে স্থানান্তরিত করা হয়েছে। তিনি বলেন, ‘আগুন লাগার কারণ এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি, কিন্তু ফায়ার ব্রিগেডের প্রাথমিক তদন্তে দেখা যাচ্ছে শর্ট সার্কিট থেকে আগুন লেগে থাকতে পারে। ’

একজন ঊর্ধ্বতন সরকারি কর্মকর্তা সাংবাদিকদের বলেন, ঘটনার আনুষ্ঠানিক তদন্ত হবে। হাসপাতালটিতে ১৭ জন করোনা রোগীর চিকিৎসা চলছিল।

মহারাষ্ট্রের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ও বিরোধী দলনেতা দেবেন্দ্র ফড়নবিস ওই ঘটনায় গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। এর পাশাপাশি তিনি দুর্ঘটনায় দগ্ধ ব্যক্তিদের সুস্থতা কামনা করেছেন।

ওই ঘটনার বিস্তারিত তদন্ত হওয়া উচিত এবং দায়ীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া উচিত বলেও সাবেক মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফড়নবিস মন্তব্য করেন।

খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর পড়ুন :